গৌরবের মুক্তিযুদ্ধ গৌরবময় মুক্তিযুদ্ধ ব্রেকিং

ইতিহাসের ২৪ মার্চ ১৯৭১

ইতিহাসের এই দিনে শেখ মুজিবের সাথে পশ্চিম পাকিস্তানের নেতৃবৃন্দেও বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। কোনও প্রকার
নতিস্বীকার রা করার সংকল্প পুনর্ব্যক্ত করেন বঙ্গবন্ধু। সারাদেশে শান্তিপূর্ণভাবে পতাকা উত্তোলন হলেও
মিরপুরের ১০নং সেক্টরে একটি বাড়ির ওপর থেকে ভয়ভীতি দেখিয়ে পতাকা সরানো হয়েছে। বোমা হামলা করা
হয়েছে। বাংলা স্কুলের প্রধান শিক্ষক জনাব কাইউমকে ছুরিকাহত করে তার বাড়িতে আগুন দেওয়া হয়। শামীম
আখতার নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে পুলিশ। যদিও তাকে ছেড়ে দিতে সেনাবাহিনীর তরফ থেকে পুলিশকে
চাপ দেওয়া হচ্ছে বলে জানা গেছে। মিরপুরে অবস্থানরত অবাঙালিরা এ সম্পর্কে কিছুই জানে না বলে জানিয়েছেন।
আওয়ামীলীগের নেতা তাজউদ্দীন আহমদ বলেন, আওয়ামীলীগের বক্তব্য শেষ। অবিলম্বে প্রেসিডেন্টের
ঘোষণার দাবি। তিনি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, অনির্দিষ্টকাল অপেক্ষা চলে না।
ঢাকা টেলিভিশন কেন্দ্রে নিয়োজিত সামরিক বাহিনীর সৈনিকদের টেলিভিশন অনুষ্ঠানে হস্তক্ষেপের প্রতিবাদে
ঢাকা টেলিভিশন কেন্দ্রের কর্মচারীরা ধর্মঘট পালন করেছে। সেনাবাহিনী ও জনতার মধ্যে সংঘর্ষ, রংপুরে
কারফিউ দেওয়া হয়। নিজ বাসভবনের সামনে জনসমাবেশে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর বর্ক্তৃতা প্রদান করেন।
সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা সৃষ্টির অপচেষ্টার বিরুদ্ধে সতর্ক থকাার জন্য দেশবাসীকে আহবান করা হয়। নির্বিচারে
গণহত্যার প্রতিবাদে কবি মোজাম্মেল হক সামরিক সরকার পদত্ত ‘সিতারায়ে খেদমত’ খেতাব বর্জন করেন।

তথ্য সূত্র: ইত্তেফাক ১৯৭১

Related posts

একুশে পদকের জন্য মনোনয়ন আহ্বান

Irani Biswash

যুদ্ধের মধ্যেই কিয়েভে যাচ্ছেন তিন দেশের প্রধানমন্ত্রী

razzak

অ্যালোভেরার যত গুণ

razzak

Leave a Comment

Translate »