আন্তর্জাতিক কোভিড ১৯ বাংলাদেশ ব্রেকিং যুক্তরাষ্ট্র স্বাস্থ্য

কানাডার আন্টারিওতে ‘স্টে হোম অর্ডার’ দুই সপ্তাহ বাড়ানো হয়েছে

ডেস্ক রিপোর্ট: কানাডায় করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা দিন দিন বেড়েই চলেছে। দেশটির প্রধান চারটি প্রদেশ ব্রিটিশ কলম্বিয়া, অন্টারিও, কুইবেক এবং আলবার্টায় করোনার নতুন ধরন খুব দ্রুত ছড়িয়ে পড়েছে যা জনমনে আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে। প্রতিদিনই আক্রান্তের সংখ্যা অস্বাভাবিকভাবে বেড়ে চলেছে। কানাডার বিভিন্ন প্রদেশে ইতোমধ্যে মাস্ক ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখাসহ বিভিন্ন কড়াকড়ি আরোপ করা হয়েছে।

কানাডার প্রধান চারটি প্রদেশের মধ্যে সবচেয়ে বড় প্রদেশ অন্টারিও। প্রদেশটিতে করোনা পরিস্থিতি ক্রমেই খারাপ থেকে ভয়াবহ খারাপের দিকে যাচ্ছে। প্রদেশের স্থানীয় পাবলিক হেলথের চিকিৎসকরা করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ায় হতাশা প্রকাশ করেছেন। স্থানীয়দের অনেকেই মাস্ক না পরায় ও ক্রমাগত সামাজিক দূরত্ব মানায় অনীহা দেখানোয় চিকিৎসকরা ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

এদিকে অন্টারিও প্রদেশে করোনা নতুন ধরন ছড়িয়ে পড়ায় তরুণদের মধ্যে সংক্রমণ ব্যাপকভাবে বেড়েছে। এ কারণে অন্টারিও প্রদেশে ৭ এপ্রিল জারি করা জরুরি জনস্বাস্থ্য বিধিনিষেধ বা ‘স্টে হোম লকডাউন’ আরও কঠোরভাবে বাস্তবায়নের ঘোষণা দেওয়া হয়েছে।

শুক্রবার (১৬ এপ্রিল) সন্ধ্যায় অন্টারিও প্রিমিয়ার ডগ ফোর্ড অন্টারিওর জরুরি অবস্থা ঘোষণা করায় ‘স্টে হোম অর্ডার’ এখন কমপক্ষে ২০ মে পর্যন্ত কার্যকর থাকবে। এতে অন্টারিও আন্তঃপ্রদেশ ভ্রমণকে সীমিত করছেন ডগ ফোর্ড। অন্টারিওর সলিসিটার জেনারেল সিলভিয়া জোনস বলেছেন, কেউ এখন বাসস্থান থেকে বের হলে তার কারণ জানতে চাইবে। বাইরে বের হওয়ার কারণ অনুসন্ধানে পুলিশের থামানোর কর্তৃত্ব থাকবে।

Related posts

জাতীয় পাট দিবস আজ

razzak

অভিনেত্রী রোমানা ইসলাম স্বর্ণার রিমান্ড ও জামিন আবেদন নামঞ্জুর

Mims 24 : Powered by information

করোনায় মৃত্যু হার কমেছে, মৃত্যু ৩৭ জন

Irani Biswash

Leave a Comment

Translate »