ডিসেম্বর ৯, ২০২২
MIMS 24
আন্তর্জাতিক জীবনধারা ধর্ম ও জীবন প্রবাস কথা প্রিয় প্রবাসী শিক্ষা

সৌদি আরবের পাঠ্যবইয়ে যোগ হচ্ছে রামায়ন, মহাভারত

ডেস্ক রিপোর্ট: এবার থেকে  সৌদি আরবের পাঠ্যবইয়ে যোগ হচ্ছে রামায়ন, মহাভারত। ভারতীয় মহাকাব্য রামায়ণ এবং মহাভারত পড়বেন সৌদি আরবের পডুয়ারা। ভারতীয় ঐতিহ্য এবং সংস্কৃতির সঙ্গে সে দেশের পড়ুয়াদের চেনানোর জন্যই এই পদক্ষেপ নিয়েছে রিয়াধ। সৌদি আরবের যুবরাজ মহম্মদ বিন সলমানের ভিশন ২০৩০ প্রকল্পের অন্তর্ভুক্ত এই উদ্যোগ।

জানা যায়, সৌদির যুবরাজের এই উদ্যোগের মাধ্যমে সৌদির শিক্ষাব্যবস্থায় একাধিক সংস্কার করা হয়েছে। বিভিন্ন দেশের ধর্ম, সংস্কৃতি এবং ঐতিহ্যের সঙ্গে পড়ুয়াদের পরিচয় ঘটাতেই এই উদ্যোগ। জানা গিয়েছে, এরপর যোগ, আয়ুর্বেদ-সহ ভারতের প্রাচীন শাস্ত্রের বিভিন্ন দিকের সঙ্গে সৌদি আরবের পড়ুয়াদের পরিচয় করিয়ে দিতে চায় রিয়াধ। তাই ইতিমধ্যেই রামায়ণ এবং মহাভারত ঠাঁই পেয়েছে পাঠ্যক্রমে। যুবরাজের ওই প্রকল্পের আওতাতেই বাধ্যতামূলক হয়েছে ইংরেজি ভাষাশিক্ষাও।

শিক্ষাক্ষেত্রে সৌদির এই সংস্কারের বিষয়টি তুলে ধরেছেন নৌফ আলমারওয়াই  নামে সে দেশের এক যোগব্যায়াম শিক্ষক। তিনি লিখেছেন, সৌদি আরবের এই নতুন ভিশন ২০৩০ সহাবস্থানে বিশ্বাসী এবং সহনশীল এক প্রজন্ম তৈরি করতে সাহায্য করবে। পাঠ্যক্রমে হিন্দু ধর্ম, বৌদ্ধ ধর্ম, রামায়ণ, কর্ম, মহাভারত এবং ধর্ম যোগ করা হয়েছে ।

সৌদি আরবে নিযুক্ত প্রথম সার্টিফায়েড ইয়োগা ইনসট্রাক্টর পদ্মশ্রী পুরস্কার পাওয়া নফ আলমারয়াই সম্প্রতি তার স্কুল পড়ুয়া ছেলের সোশাল স্টাডিজের কিছু প্রশ্ন স্ক্রিনশট টুইট করলে সেগুলি দ্রুত ভাইরাল হয়ে বিষয়টি সামনে চলে আসে। তো কি কি থাকছে কারিকুলামে? ইয়োগা তো করাচ্ছেই, সাথে হিন্দু ধর্মের রামায়ন মহাভারতও কার্মা ধার্মা অন্তর্ভুক্ত করেছে। পাঠ করা হচ্ছে গৌতমবুদ্ধ! ইংরেজি ভাষা তো এখন তাদের আবশ্যিক এক বিষয়!
জেদ্দায় বাস করা নফ আলমারওয়াই দীর্ঘদিন থেকে সৌদিতে ইয়োগা জনপ্রিয় করার লক্ষে কাজ করে যাচ্ছেন। জন্ম থেকেই অটোইমিউনের আক্রান্ত এই ফাইটার ২০১৮ সালে পদ্মশ্রী পান যেটা তিনি সৌদি আরবকে উৎসর্গ করেন।
শুনি, বাইরের দেশে বাচ্চাদের সিলেবাসে Respectful Relationship বলে এক সাবজেক্ট থাকে যেটা সেই ফাউন্ডেশন গ্রেড থেকে পড়ানো হয়। যাতে ধর্ম বর্ণ মত নির্বিশেষে সবার প্রতি বাচ্চারা ছোট থেকে শ্রদ্ধাশীল ও সহনশীল হতে শিখে! তারা নিয়মিত চর্চা করে!
যুবরাজ সালমানের কিছু কাজ সৌদি আরবকে বিশাল এক আগামীর লক্ষ্যের দিকে নিয়ে যাবে নিশ্চিত। সৌদির ধর্মীয় গোড়ামিকে উপেক্ষা করে একটা বিশাল লক্ষ্যকে সামনে রেখে তাদের বাচ্চাদের উদার হতে শেখাচ্ছে।

Related posts

বাজেটের ঘাটতি পূরণে পাঁচ হাজার কোটি ডলারের সাহায্য চায় ইউক্রেন

razzak

বিশ্বের ঝুঁকিপূর্ণ বিমানবন্দর, রানওয়ে মাত্র ৫২৭ মিটার

razzak

ছাদখোলা বাসে ট্রফি উল্লাস: সাফ জয়ী মেয়েদের ঘিরে শোভাযাত্রায় লাখো মানুষ

Mims 24 : Powered by information

Leave a Comment

Translate »