জনদুর্ভোগ জাতীয় জীবনধারা দুর্ঘটনা পরিবেশ বাংলাদেশ ব্রেকিং

ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’ ভয়াবহ আকার ধারণ করতে পারে

নিজস্ব সংবাদদাতা:  বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ইয়াস ভয়াবহ আকার ধারণ করে   টানা ১০ থেকে ১২ ঘণ্টা তাণ্ডব চালাতে পারে । এ সময় বাতাসের গতি ঘণ্টায় গড়ে ১৮০ থেকে ২০০ কিলোমিটার পর্যন্ত হতে পারে।

রোববার সন্ধ্যায় বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদফতরের আবহাওয়াবিদ এ কে এম রুহুল কুদ্দুস ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের সর্বশেষ পরিস্থিতি জানাতে গিয়ে এ তথ্য জানান।

আবহাওয়াবিদ বলেন, ঘূর্ণিঝড়টি মূলত পশ্চিমবঙ্গ, ওড়িষা ও বিহার উপকূলীয় এলাকায় আছড়ে পড়তে পারে। বাংলাদেশের খুলনা উপকূলেও আঘাত হানার সম্ভাবনা রয়েছে ঝড়টির।

তিনি বলেন, ২৬ মে বিকেলের পর থেকে সন্ধ্যার মধ্যে ঘূর্ণিঝড়টি উপকূলে আঘাত হানা শুরু করবে। বাংলাদেশে হয়তো ঘণ্টায় ৮০ থেকে ১০০ কিলোমিটার বেগে ঝোড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। এক্ষেত্রে সুন্দরবনের পাশ দিয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে এখনো স্পষ্ট করে কিছু বলা যাচ্ছে না।

আবহাওয়াবিদ এ কে এম রুহুল কুদ্দুস বলেন, আঘাতের কেন্দ্রস্থলে ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ২২০ কিলোমিটার পর্যন্ত গতি হতে পারে ইয়াসের। তবে টানা ঝড় বয়ে যাওয়ার সময় গতি গড়ে ১৮০ কিলোমিটার থাকার সম্ভাবনা রয়েছে।

বাংলাদেশ আবহাওয়া অফিসের দেওয়া সবশেষ বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ঘূর্ণিঝড়টি আজ দুপুর ১২টায় চট্টগ্রাম সমুদ্র বন্দর থেকে ৭০০ কি.মি. দক্ষিণ-দক্ষিণ পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্র বন্দর থেকে ৬২৫ কি.মি. দক্ষিণ-দক্ষিণ পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্র বন্দর থেকে ৭১০ কি.মি. দক্ষিণে এবং পায়রা সমুদ্র বন্দর থেকে ৬৫৫ কি.মি. দক্ষিণে অবস্থান করছিল। এটি আরও ঘণীভূত হয়ে গভীর নিম্নচাপ এবং পরে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়ে উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হতে পারে।

Related posts

ইউক্রেন ইস্যুতে ভারতের অবস্থানে সন্তষ্ট রাশিয়া

razzak

কম বয়সেই হয়েছেন টাক? ঢেকে ফেলুন সহজে

razzak

ছয় মাস ঢাকার রানওয়ে রাতে বন্ধ, জরুরি অবতরণ সিলেটে

razzak

Leave a Comment

Translate »