অক্টোবর ১, ২০২২
MIMS 24
অর্থনীতি এই মাত্র জাতীয় বাংলাদেশ ব্রেকিং

বাংলাদেশ ব্যাংকের সার্কুলার; আমানতকারীদের লভ্যাংশ নিশ্চিত করার নির্দেশনা

ব্যাংকগুলোর মেয়াদি আমানতের বিপরীতে সুদ বা মুনাফার হার কোনোক্রমেই মূল্যস্ফীতির হারের কম হবে না।

ব্যক্তি পর্যায়ের এবং বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রভিডেন্ট ফান্ড, অবসরোত্তর পাওনাসহ বিভিন্ন পাওনা পরিশোধের জন্য গঠিত তহবিল বাবদ রক্ষিত যে কোনো পরিমাণ মেয়াদি আমানতের উপর সুদ বা মুনাফার হার নির্ধারণের ক্ষেত্রে ১২ মাসভিত্তিক গড় মূল্যস্ফীতির হার বিবেচনায় নিতে হবে।

একই সঙ্গে ঋণ বা বিনিয়োগের বিপরীতে সুদ বা মুনাফার হার সর্বোচ্চ ৯ শতাংশের বেশি হবে না। এ ধরনের বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ নির্দেশনা দিয়ে রোববার বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে সার্কুলার জারি করা হয়।

যা বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোর প্রধান নির্বাহীদের কাছে পাঠানো হয়েছে। এ প্রসঙ্গে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সংশ্লিষ্ট কর্তকর্তা বলেন, গতকাল থেকেই এ নির্দেশনা কার্যকর করা হয়েছে।

এর ফলে মেয়াদি আমানতের মুনাফার হার এখন থেকে কোনো ব্যাংক গড় মূল্যস্ফীতির হারের চেয়ে কম নির্ধারণ করতে পারবে না। হারের সমানও না। মূল্যস্ফীতির হারের চেয়ে সামান্য হলেও বেশি হতে হবে।

সূত্র জানায়, সাম্প্রতিক সময়ে ব্যাংকিং খাতে সাধারণ সঞ্চয়ী আমানতের সুদের হার অনেক কমে গেছে। অনেক ব্যাংক সঞ্চয়ী আমানতের সাধারণ হিসাবে কোনো মুনাফা দিচ্ছে না।

কিছু ব্যাংক দিলেও তা ১ থেকে ২ শতাংশের মধ্যে। হাতেগোনা কয়েকটি ব্যাংক ৩ শতাংশ মুনাফা দিচ্ছে। মেয়াদি আমানতের হিসাবেও মুনাফার হার কমে গেছে। কমতে কমতে এই হার এখন মূল্যস্ফীতির হারের চেয়ে কমে গেছে।

গত জুন মাসে ১২ মাসের হিসাবে গড় মূল্যস্ফীতির হার ৫ দশমিক ৫৬ শতাংশে উঠেছে। পয়েন্ট টু পয়েন্ট ভিত্তিতে অর্থাৎ গত বছরের জুনের তুলনায় চলতি বছরের জুনে ৫ দশমিক ৬৪ শতাংশ হয়েছে। গ্রামে এই হার ৫ দশমিক ৮৪ শতাংশ। এদিকে ব্যাংকগুলোতে মেয়াদি আমানতের সুদের হার ৩ থেকে ৫ শতাংশের মধ্যে। হাতেগোনা কয়েকটি ছোট ও নতুন প্রজন্মের ব্যাংকে এ হার ৬ থেকে ৮ শতাংশ।

অর্থাৎ বেশির ভাগ ব্যাংকেই আমানতের সুদের হার মূল্যস্ফীতির হারের চেয়ে কম। ফলে ব্যাংকে টাকা জমা রাখলে বাড়ার চেয়ে ক্ষয় হচ্ছে বেশি।

এছাড়া ব্যাংকের সার্ভিস চার্জ, মুনাফার উপর সরকারের কর এসব পরিশোধ করলে জমা টাকার ক্ষয় আরও বেড়ে যাচ্ছে। সাধারণ সঞ্চয়ী হিসাবে টাকা জমা রাখলে তা ক্ষয় হচ্ছে। চলতি হিসাবে ব্যাংক কোনো মুনাফা দিচ্ছে না।

সার্কুলারে বলা হয়, সম্প্রতি ব্যাংকিং খাতে আমানতের সুদের হার ক্রমান্বয়ে হ্রাস পাচ্ছে। ব্যাংক থেকে প্রাপ্ত বিবরণী পর্যালোচনায় দেখা যায়, বেশির ভাগ ব্যাংক মেয়াদি আমানতের উপর মূল্যস্ফীতির হারের চেয়ে কম হারে সুদ বা মুনাফা প্রদান করছে। ক্ষুদ্র আমানতকারীসহ অন্য আমানতকারীদের একটি অংশ তাদের জীবিকা নির্বাহের জন্য ব্যাংকে রক্ষিত আমানতের সুদ বা মুনাফার উপর নির্ভরশীল।

ব্যাংকে রক্ষিত মেয়াদি আমানতের উপর সুদ বা মুনাফা মূল্যস্ফীতির হারের চেয়ে অত্যধিক কমে যাওয়ায় জনগণের সঞ্চয় প্রবণতাকে নিরুৎসাহিত করছে। ফলে আমানত ব্যাংকে রাখার পরিবর্তে ঝুঁকিপূর্ণ খাতসহ বিভিন্ন অনুৎপাদনশীল খাতে বিনিয়োগের প্রবণতা বাড়ছে।

এতে আরও বলা হয়, ব্যাংকের তহবিলের প্রধান উৎস হলো বিভিন্ন ধরনের আমানতকারীদের কাছ থেকে সংগৃহীত আমানত। আমানতের উপর সুদ বা মুনাফার হার অতিমাত্রায় কমে গেলে ভবিষ্যতে ব্যাংকের আমানতের উপর এর বিরূপ প্রভাব পড়তে পারে। ফলে ব্যাংকের দায় সম্পদ ব্যবস্থাপনায়ও ভারসাম্যহীনতার সৃষ্টি হতে পারে।

এ অবস্থায় আমানতকারীদের স্বার্থ সুরক্ষা এবং ব্যাংকিং খাতে দায় ও সম্পদের মধ্যেকার ভারসাম্য রক্ষা করতে হবে। এ কারণে মেয়াদি আমানতের সুদ সব সময় মূল্যস্ফীতির উপরে দিতে হবে।

Related posts

সামুদ্রিক ঘাস রক্ষায় সাগরতলে ব্যতিক্রমী প্রতিবাদ

Mims 24 : Powered by information

ভারতের পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচনে সবার নজর নন্দীগ্রামে

Mims 24 : Powered by information

বহুজাতিক কোম্পানি সানোফির শেয়ার কিনে নিচ্ছে বেক্সিমকো ফার্মা

Mims 24 : Powered by information

Leave a Comment

Translate »