সেপ্টেম্বর ৩০, ২০২২
MIMS 24
এই মাত্র জাতীয় বাংলাদেশ ব্রেকিং

ফেরি চালু হলে সারিয়াকান্দি-ঢাকার দূরত্ব কমবে ৮০ কিমি

দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর বগুড়ার সারিয়াকান্দির কালিতলা ও জামালপুরের মাদারগঞ্জ উপজেলার জামথলের মধ্যে চালু হচ্ছে ফেরি। এই ফেরি চালু হলে ঢাকার সঙ্গে সারিয়াকান্দির (সারিয়াকান্দি পয়েন্ট থেকে) দূরত্ব কমবে প্রায় ৮০ কিলোমিটার। বৃহস্পতিবার (১২ আগস্ট) হবে আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন। এই খবরে খুশির বন্যা বইছে যমুনার দুই পাড়ের মানুষের মধ্যে।

নতুন এ সার্ভিস চালু হলে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানের দূরত্ব যেমন কমবে, তেমন খরচের দিক থেকেও হবে সাশ্রয়ী। একই সঙ্গে যমুনা সেতু দিয়ে পারাপারের ভোগান্তিও কমবে অনেকটা।

জানা যায়, জামালপুর ও বগুড়া জেলার মধ্যে যমুনার নৌপথে ফেরি সার্ভিস চালু করার বিষয়ে দীর্ঘদিন চেষ্টা চলছিল। ফেরি সার্ভিসের উদ্বোধন হলেও পরীক্ষামূলকভাবে চলবে সি-ট্রাক। পূর্ণাঙ্গ ফেরি সার্ভিস চালু করতে সময় লাগবে আরও কয়েক মাস। বিআইডাব্লিউটিএ কর্তৃপক্ষ এই নৌপথে চলাচলের জন্য ২শ আসনবিশিষ্ট শহীদ আব্দুর রউফ সেরনিয়াবাত নামে একটি সি-ট্রাক এরই মধ্যে মাদারগঞ্জের জামথল ঘাটে ভিড়িয়েছে। ভরা বর্ষা মৌসুমে দুই ঘাটের দূরত্ব থাকে ১০ কিলোমিটার। শুকনো মৌসুমে দূরত্ব বেড়ে ১৫ কিলোমিটার হয়। শুরুতে সি-ট্রাকটি এই নৌপথে দিনে চারবার যাতায়াত করবে। সময় লাগবে ৪০ মিনিটের মতো।

এ বিষয়ে বিআইডাব্লিউটিএ কর্মকর্তা আশফাক আমিন বলেন, নৌকায় চলাচলের চেয়ে অনেকটা ঝুঁকিমুক্তভাবে যাত্রীরা যাতায়াত করতে পারবেন। এই সার্ভিস চালু হলে উত্তবঙ্গের যাত্রীদের মাদারগঞ্জ হয়ে ঢাকায় যাতায়াতে বঙ্গবন্ধু সেতুর প্রয়োজন হবে না। এতে রাজধানী ঢাকার সঙ্গে দূরত্ব কমবে ৮০ কিলোমিটার।

বৃহস্পতিবার (১২ আগস্ট) সকাল ১০টায় ফেরি সার্ভিস আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনের পর ২শ যাত্রী নিয়ে মাদারগঞ্জ থেকে বগুড়ার সারিয়াকান্দির কালিতলা ঘাটের উদ্দেশে যাত্রা করবে।

মাদারগঞ্জের জামাথল ঘাটে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকবেন নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী। বিশেষ অতিথি হিসেবে থাকবেন জামালপুর-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম, বগুড়া-১ আসনের সংসদ সদস্য শাহদারা মান্নান, বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন করপোরেশনের (বিআইডব্লিউটিসি) চেয়ারম্যান সৈয়দ তাজুল ইসলাম, বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআইডব্লিউটিএ) চেয়ারম্যান গোলাম সাদিক।

আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম বলেন, উত্তাল যমুনার নৌপথে যাত্রী ও যানবাহন পারাপারের জন্য এই সেবা চালুর চেষ্টা দীর্ঘদিনের। এই নৌরুট উদ্বোধন হলে বগুড়া ও জামালপুর জেলাবাসীর দীর্ঘদিনের স্বপ্ন পূরণ হবে। আপাতত পার হবে যাত্রী ও ছোটগাড়ি। শিগগিরই দুই ঘাটের অবকাঠামোগত উন্নয়ন সম্পন্ন হলে যাত্রীবাহী বাস ও পণ্যবাহী ভারী মোটরযান পারাপারের ব্যবস্থা করা হবে। দুই পাড়েই জেলা সদরের সঙ্গে যোগাযোগ সহজ করার জন্য নির্মাণ করা হবে প্রশস্ত রাস্তা।

জানা যায়, জামালপুরের মাদারগঞ্জ থেকে জামথল ঘাট পর্যন্ত এলজিইডির আওতাধীন আট কিলোমিটার দীর্ঘ ১২ ফুট সড়কটি ২৪ ফুটে উন্নীত করতে সড়ক ও জনপথ বিভাগে হস্তান্তর করা হয়েছে। সড়ক ও জনপথ এই সড়ক নির্মাণের জন্য এরই মধ্যে জমা দিয়েছে ১৯২ কোটি টাকার প্রকল্পের পিপি।

সারিয়াকান্দি পৌরসভার মেয়র মতিউর রহমান বলেন, সারিয়াকান্দি-মাদারগঞ্জ রুটে ফেরি চালু হলে কৃষকদের জন্য বিপ্লব ঘটবে। কারণ চরাঞ্চলের অবহেলিত কৃষক কখনই তাদের উৎপাদিত পণ্যের ন্যায্যমূল্য পায় না। আবার চর থেকে রাজধানীর বাজারে পণ্য পাঠানোও তাদের জন্য কঠিন। ফেরি চালু হলে পাইকাররা এ অঞ্চলে আসবেন। এতে মৌসুমি পণ্যের ভালো দাম পাবেন কৃষক।

মাদারগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক ও সি-ট্রাকের ইজারাদার জাহিদুর রহমান উজ্জ্বল তালুকদার বলেন, দীর্ঘদিন পর হলেও মাদারগঞ্জ-সারিয়াকান্দি নৌপথে ফেরি চালু হচ্ছে। এতে এলাকার জনগণ খুশি। এই রুটে ফেরি চালু হলে রাজধানী যাতায়াতে সময় অনেক সাশ্রয় হবে। সি-ট্রাকে ২শ যাত্রী, ২-৩টি প্রাইভেট গাড়ি, ১৫/২০টি মোটরসাইকেল পারাপার করা সম্ভব। আপাতত জনপ্রতি ভাড়া হবে ১০০ টাকা। যানবাহনের ভাড়া পরে নির্ধারণ করা হবে।

Related posts

এবার বাংলাদেশে দুইজনের দেহে ওমিক্রন শনাক্ত

razzak

বৃষ্টিপাত নিয়ে নতুন বার্তা জানাল আবহাওয়া অফিস

razzak

দুই শ্রেণির মানুষকে বুস্টার ডোজ দেওয়ার পরামর্শ জাতীয় কমিটির

razzak

Leave a Comment

Translate »